ঢাকা, মঙ্গলবার, ১০ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ২৪ নভেম্বর ২০২০, ০৭ রবিউস সানি ১৪৪২

বাজেট

৪৬ পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য ৮৪৮৫ কোটি টাকার বাজেট

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭০৭ ঘণ্টা, জুন ২৪, ২০২০
৪৬ পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য ৮৪৮৫ কোটি টাকার বাজেট

ঢাকা: দেশের ৪৬টি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য ২০২০-২০২১ অর্থবছরে আট হাজার ৪৮৫ কোটি ১২ লাখ টাকার বাজেট অনুমোদন করেছে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি)। এরমধ্যে পাঁচ হাজার ৪৫৪ কোটি ১২ লাখ টাকার রাজস্ব বাজেট এবং ৫৩টি প্রকল্পের অনুকূলে তিন হাজার ৩১ কোটি টাকার উন্নয়ন বাজেট রয়েছে। এ বছর রাজস্ব বাজেটে বরাদ্দ পাঁচ শতাংশ বাড়ানো হয়েছে।

ইউজিসি চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. কাজী শহীদুল্লাহর সভাপতিত্বে বুধবার (২৪ জুন) ইউজিসির ১৫৮তম পূর্ণ কমিশন সভায় এ বাজেট অনুমোদিত হয় বলে সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে।

দেশে করোনা পরিস্থিতির কারণে প্রথমবারের মতো পূর্ণ কমিশন সভা অনলাইন মিটিং প্ল্যাটফর্ম জুমের মাধ্যমে অনুষ্ঠিত হয়।

সভায় বাজেট উপস্থাপন করেন ইউজিসির অর্থ ও হিসাব বিভাগের দায়িত্বপ্রাপ্ত সদস্য অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ আলমগীর। সভার কার্যপত্র উপস্থাপন করেন ইউজিসি সচিব (অতিরিক্ত দায়িত্ব) ড. ফেরদৌস জামান।

পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে উচ্চশিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনার জন্য প্রতিবছর ইউজিসির মাধ্যমে বাজেট দেওয়া হয়। গত অর্থবছরে এসব বিশ্ববিদ্যালয়ের অনুকূলে বাজেটে বরাদ্দের পরিমাণ ছিল আট হাজার ৮৮ কোটি ৪৯ লাখ টাকা। সে তুলনায় পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য এ বছর বরাদ্দ বেড়েছে প্রায় ৩৯৭ কোটি টাকা। নতুন অর্থবছরে সবচেয়ে বেশি রাজস্ব বাজেট পেয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়। এর পরিমাণ ৮৩০ কোটি ছয় লাখ টাকা।

উচ্চশিক্ষায় পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর গবেষণার জন্য ২০২০-২০২১ অর্থবছরে মূল বাজেটে ৬৬ কোটি ৬৫ লাখ বরাদ্দ ধরা হয়েছে। গতবছরের তুলনায় এ খাতে বরাদ্দ বেড়েছে তিন শতাংশ। ২০১৯-২০২০ অর্থবছরে গবেষণায় মূল বাজেটে ৬৪ কোটি ৫৮ লাখ টাকা বরাদ্দ ধরা হয়েছিল।

পূর্ণ কমিশন ২০২০-২০২১ অর্থবছরে ইউজিসির জন্য ৬২ কোটি ৯৫ লাখ টাকার বাজেট অনুমোদন করেছে। ২০১৯-২০২০ অর্থবছরে এ অর্থের পরিমাণ ছিল ৫৩ কোটি ৩৩ লাখ টাকা।

সভায় ইউজিসি সদস্য অধ্যাপক ড. দিল আফরোজা বেগম ও অধ্যাপক ড. মো. সাজ্জাদ হোসেন, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. হারুন-উর-রশিদ আসকারী, চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি ও এনিম্যাল সায়েন্সেস ইউনিভার্সিটির উপাচার্য অধ্যাপক ড. গৌতম বুদ্ধ দাস, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য (ভারপ্রাপ্ত) অধ্যাপক ড. মো. শাহজাহান অংশ নেন।

এছাড়াও খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন স্কুলের ডিন অধ্যাপক ড. মো. ওয়ালিউল হাসান, সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণিসম্পদ উৎপাদন ও ব্যবস্থাপনা বিভাগের অধ্যাপক ড. মো. আব্দুল বাসেত, বাংলাদেশ টেক্সটাইল বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েট প্রসেস ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের অধ্যাপক ড. মো. জুলহাস উদ্দিন, পরিকল্পনা কমিশনের সদস্য (আর্থ-সামাজিক অবকাঠোমো), শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের সচিব মাহবুব হোসেন এবং অর্থ মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা অংশ নেন।

অনুষ্ঠানে পূর্ণ কমিশনের ১৫৭তম সভার কার্যাবিবরণী অনুমোদন, গৃহীত বিভিন্ন সিদ্ধান্তের বাস্তবায়ন অগ্রগতি পর্যালোচনা, কোভিড-১৯ মহামারির কারণে দেশের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে শিক্ষা কার্যক্রমের বিষয়ে গৃহীত পদক্ষেপগুলো অবহিত করাসহ কমিশনের পদোন্নয়ন/পদোন্নতি কমিটির সুপারিশের ভিত্তিতে ইউজিসির ১০ জন কর্মকর্তাকে পদোন্নয়ন দেওয়া হয়।

এছাড়া পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে অনলাইনে ক্লাস পরিচালনার জন্য বিশেষ বরাদ্দ চেয়ে সরকারের কাছে চিঠি দেওয়ার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

বাংলাদেশ সময়: ১৭০৪ ঘণ্টা, জুন ২৪, ২০২০
এমআইএইচ/টিএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa